ঢাকা, আজ শনিবার, ৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৩

“কুবি ভিসি জামাত বিএনপির এজেন্ট” – শাখা ছাত্রলীগ সভাপতি

প্রকাশ: ২০২২-১২-১৪ ০৯:৫৪:২৬ || আপডেট: ২০২২-১২-১৪ ০৯:৫৫:৫৯

কুবি প্রতিনিধি:

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় (কুবি) ভিসিকে জামাত-বিএনপির এজেন্ট বলে মন্তব্য করেছেন কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি । শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্যে পুষ্পস্তবক অর্পণের পর এসব কথা বলেন তিনি।

এসময় সভাপতি ইলিয়াস হোসেন সবুজ বলেন, “সে লোক (উপাচার্য) কোন আওয়ামীলীগ হতে পারেনা, সে লোক বিএনপি জামায়াতের এজেন্ট।”

উপাচার্য ছাত্রলীগকে ধ্বংসের পাঁয়তারা করছেন অভিযোগ করে ইলিয়াস বলেন, “উপাচার্য প্রশাসনের লোকদের বলে বেড়াচ্ছেন ছাত্রলীগ বলতে বিশ্ববিদ্যালয়ে কিছু থাকবেনা। বঙ্গবন্ধুর হাতেগড়া সংগঠনকে ধ্বংস করার জন্য উঠে পড়ে লেগেছেন এই উপাচার্য। আজকের এই রাষ্ট্রীয় প্রোগ্রামে ছাত্রলীগকে বঞ্চিত করার জন্য উঠে পড়ে লেগেছে। উনার লালিত কয়েকজন শিক্ষকদের দিয়ে আবাসিক হলগুলোতে বলেছে ছাত্রলীগ বলে কোন সংগঠন থাকবেনা। ছাত্রলীগকে ভেঙ্গে ফেলার জন্য উঠে পড়ে লেগেছে।”

উপাচার্য বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের হেয় প্রতিপন্ন করছেন বলে ইলিয়াস অভিযোগ করে বলেন, “বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকদের আপনি যেইভাবে হেয় প্রতিপন্ন করে যাচ্ছেন, তারা চুপ থাকতে পারে। কিন্তু ছাত্রলীগ চুপ থাকবেনা। আপনি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী যাদের আপনার পছন্দ হয়না, আপনি তাদের যেভাবে স্টিমরোলার চালিয়ে যাচ্ছেন, সেটা যদি ছাত্রলীগের উপর করার জন্য বসে আছেন তাহলে আপনি বোকার স্বর্গে বসবাস করতেছেন। আপনার অডিও রেকর্ড আছে আপনি শিক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে গিয়ে কিভাবে মিথ্যাচার করেছেন। আপনি বিশ্ববিদ্যালয়ের সব জায়গায় ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করতে চাচ্ছেন।”

এ সময় উপাচার্যকে অবৈধ বলে তিনি অভিযোগ করেন, “উপাচার্য বাংলোতে বসে বিভিন্ন পদে অবৈধভাবে নিয়োগ।”

এসব অভিযোগ নিয়ে উপাচার্য ড. এএফএম আবদুল মঈন কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি। ‘ছাত্রলীগ কেনো আপনার বিরুদ্ধে অভিযোগ করছে?’ এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, “এ বিষয়ে আমার কোনো বক্তব্য নেই”