ঢাকা, আজ শুক্রবার, ৫ মার্চ ২০২১

১৫ বছর পরেও কুবিতে নেই বর্জ্য ব্যবস্থাপনা

প্রকাশ: ২০২১-০১-০৮ ১৪:২৬:১৫ || আপডেট: ২০২১-০১-০৮ ১৪:২৬:২৮

কুবি প্রতিনিধি

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে (কুবি) সুষ্ঠু বর্জ্য ব্যবস্থাপনার অভাবে যত্রতত্র গড়ে উঠেছে আবর্জনার স্তূপ। ক্যাম্পাসের বিভিন্ন আঙিনায়, গেট সংলগ্ন রাস্তার পাশে, মুক্তমঞ্চের পাশে এবং ভবনগুলোর পাশে সুষ্ঠু ব্যাবস্থাপনার অভাবে গড়ে উঠেছে ময়লার স্তূপ। যা নোংরা করছে বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবেশ।

শিক্ষার্থীদের দাবি সুষ্ঠু তদারকির অভাবে যেখানে সেখানে ময়লা-আবর্জনা ফেলায় এবং কতৃপক্ষের নির্দিষ্ট বর্জ্য ব্যবস্থাপনা না থাকায় পরিবেশ নষ্ট হচ্ছে। এছাড়াও প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের টানে বিভিন্ন সময় ক্যাম্পাসে ঘুরতে আসা মানুষজন এসেও যত্রতত্র ময়লা ফেলে নোংরা করছে বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবেশ।আবার ক্যাম্পাসে এবং ভবনগুলোর ভিতরে নির্দিষ্ট কোন ডাস্টবিন না থাকায় যত্রতত্র ময়লা ফেলতে দ্বিধা করছেনা শিক্ষার্থীরা।এক্ষেত্রে বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্তৃপক্ষের অসচেতনতাকে দায়ী করছেন শিক্ষার্থীরা।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, ২০১৯ সালে বিভিন্ন গণমাধ্যমে এই ব্যাপারে সংবাদ পরিবেশিত হলে কর্তৃপক্ষ বর্জ্য ব্যবস্থাপনা সমস্যা সমাধানের আশ্বাস দেন। কিন্তু দু বছর পেরিয়ে এখনও সেটি বাস্তবায়ন হয়নি। অন্যদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিচ্ছন্নতা কমিটি থাকলেও ক্যাম্পাসে বিভিন্ন আঙ্গিনায় ঝোপঝাড় পরিস্কার ছাড়া বর্জ্য ব্যবস্থাপনা নিয়ে কোন পদক্ষেপ নিতে দেখা যায় নি।

এ বিষয়ে আইসিটি বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী ওমর ফারুক ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, “বিশ্ববিদ্যালয়ের মতো একটা জায়গায় এমন নোংরা পরিবেশ কখনোই কাম্য নয়। এই বিষয়ে কর্তৃপক্ষের যথাযথ পদক্ষেপ দ্রুত বাস্তবায়নের দাবি করছি। ”

এ বিষয়ে কথা বলতে গেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার (অতিরিক্ত দায়িত্ব) ড. মোঃ আবু তাহের বলেন, “নিরাপত্তাজনিত সমস্যার কারণে আমরা প্লাস্টিকের ডাস্টবিন ব্যবহার করতে পারছিনা। সিটি কর্পোরেশনের ডাস্টবিনগুলো নিরাপদ হওয়ায় করোনার আগে আমরা সরাসরি সিটি কর্পোরেশনের মেয়রের সাথে যোগাযোগ করেছি এবং তাদেরকে একটা চিঠিও দিয়েছি। তারা আমাদেরকে এ ব্যাপারে এখনো কিছু জানাইনি।আমরা ইতোমধ্যে আবার যোগাযোগ করবো এবং খুব দ্রুত বর্জ্য ব্যবস্থাপনা জনিত সমস্যা সমাধানের চেষ্টা করবো।”