ঢাকা, আজ মঙ্গলবার, ২০ অক্টোবর ২০২০

মাদকের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করায় স্কুলছাত্রের আঙ্গুল কেটে নিলো মাদক ব্যবসায়ীরা

প্রকাশ: ২০২০-০৮-২৭ ০০:০৫:৫১ || আপডেট: ২০২০-০৮-২৭ ০০:০৫:৫১

অনলাইন ডেস্কঃ

গাজীপুরের কালিয়াকৈরে এক স্কুলছাত্রের হাতের দুটি আঙ্গুল কেটে ফেললো স্থানীয় মাদক ব্যবসায়ীরা। মাদকের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করায় তার আঙ্গুল কেটে ফেলেছে বলে স্থানীয়দের অভিযোগ।

এ ঘটনায় এক মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে এলাকাবাসী। গ্রেফতারকৃতকে মঙ্গলবার দুপুরে গাজীপুর কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

আহত সাজিদুল ইসলাম পরান (১৮), কালিয়াকৈর উপজেলার রাখালিয়াচালা এলাকার দেলোয়ার হোসেনের ছেলে। তিনি স্থানীয় আয়েশা ইসলামিক স্কুলের দশম শ্রেণির ছাত্র।

স্থানীয় এক ব্যবসায়ী মো. রাকিব মৃধা ও ভুক্তভোগী সাজিদুল জানান, কালিয়াকৈর উপজেলার ধোপাচালা ও রাখালিয়াচালা এলাকার নিরব হোসেন, শহিদুল ইসলাম জাহিদ, রনি মিয়া, মনির হোসেনসহ বেশকিছু মাদক ব্যবসায়ী ওই এলাকাসহ বিভিন্ন এলাকায় মাদক ব্যবসা করে আসছে। মাদকাসক্ত হয়ে পড়ছেন এসব এলাকার শিশু শিক্ষার্থীসহ বিভিন্ন শ্রেণির মানুষ। এতে অতিষ্ঠ হয়ে বছরখানেক আগে পুলিশ প্রশাসনের যৌথ উদ্যোগে একটি মাদক বিরোধীসভা করেন স্থানীয় লোকজন। সেই সভায় মাদক বিরোধী একটি কমিটিও করা হয়। পরে তাদের সহযোগিতায় অভিযান চালিয়ে বেশ কয়েকজন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

তারা আরও বলেন, এতে ক্ষিপ্ত হন ওই মাদক ব্যবসায়ীরা। এর জের ধরে সোমবার দুপুরে উপজেলার ধোপাচালা এলাকায় দা, চাপাতি, লাঠি, রড নিয়ে সাজিদুলের উপর হামলা চালায় মাদক ব্যবসায়ী নিরব হোসেন, শহিদুল ইসলাম জাহিদ, রনি মিয়া, মনির হোসেনসহ আরও ৩/৪ জন। হামলা চালিয়ে এলোপাথাড়ি পিটিয়ে জখম করে তাকে। এ সময় কুপিয়ে সাজিদুলের দুটি আঙ্গুলের অংশ কেটে বিচ্ছিন্ন করে ফেলে মাদক ব্যবসায়ীরা। আরও দুটি আঙ্গুলের কিছু অংশও কেটে যায়। সে মাটিতে লুটিয়ে পড়লে তার প্যান্টের পকেটে থাকা ১ হাজার ৭৫০ টাকা এবং ১৮ হাজার টাকা মূল্যে একটি মোবাইল সেট লুট করে নিয়ে যায়।

পরে তার চিৎকারে আশে-পাশের লোকজন এগিয়ে গেলে তারা তাকে খুন করার হুমকি দিয়ে চলে যায়। পরে স্থানীয় লোকজন তাকে প্রথমে কালিয়াকৈর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে, পরবর্তীতে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে। পরে সেখানে থেকে তাকে উত্তরার শিন শিন জাপান হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সেখানে তাকে বাম হাতের দুই আঙ্গুলের অর্ধেকাংশ কেটে বাদ দেয়া হয়েছে।

এ ঘটনায় আহত সাজিদুল ইসলাম পরান বাদি হয়ে ওইদিন রাতে কালিয়াকৈর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। পরে নিরব হোসেন নামে এক মাদক ব্যবসায়ীকে রাতেই আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে এলাকাবাসী। মঙ্গলবার দুপুরে গ্রেফতারকৃত মাদক ব্যবসায়ীকে গাজীপুর জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। গ্রেফতারকৃত নিরব উপজেলার ধোপাচালা এলাকার আব্দুল সাত্তারের ছেলে।

কালিয়াকৈর থানার ওসি মো. মনোয়ার হোসেন চৌধুরী জানান, এ ঘটনায় কালিয়াকৈর থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। এছাড়া এ ঘটনায় জড়িত এক আসামিকে গ্রেফতারের পর গাজীপুর জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। তবে বাকি আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

রাজধানীর উত্তরার শিন-শিন জাপান হাসপাতালের জরুরি বিভাগে দায়িত্বে থাকা হাজেরা বেগম জানান, তাদের হাসপাতালের চিকিৎসক মো. তারেক আমিন সাজিদুল ইসলামের হাতের অপারেশন করেছেন। তার দুইটি আঙ্গুলের অংশ বাদ দেয়া হয়েছে।