ঢাকা, আজ বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০

কুমিল্লায় মাদক ব্যবসায়িদের ছাড়ানোর জন্য ঘুষ দিতে গিয়ে আ’লীগ ও যুবলীগ নেতা আটক

প্রকাশ: ২০২০-০৮-১১ ১৫:২২:১৩ || আপডেট: ২০২০-০৮-১১ ১৫:২২:১৩

ডেস্ক রিপোর্টঃ

কুমিল্লা নগরীর দিগাম্বরীতলা এলাকা থেকে বিয়ার ও ইয়াবাসহ ৪ মাদক ব্যবসায়িকে আটক করেছে কুমিল্লা র‌্যাব-১১ এর সিপিসি-২ এর সদস্যরা। উক্ত অভিযান শেষে গ্রেফতারকৃতদের ছাড়ানোর জন্য র‌্যাবকে উৎকোচ প্রদানের চেষ্টাকালে মহানগর ওয়ার্ড আ’লীগ ও মহানগর যুবলীগের নেতাসহ ৬ জনকে আটক করা হয়।

সোমবার (১০ আগষ্ট) রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-১১, সিপিসি-২ এর একটি আভিযানিক নগরীর দিগম্বরীতলা এলাকায় (নানুয়ারদিঘী সংলগ্ন) এল আর এপেক্স টাওয়ার নামক একটি নির্মানাধীণ ভবনে অভিযান পরিচালনা করে ৪ জন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করে। তাদের নিকট হতে মোট ৩০৫ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, ১২ ক্যান বিয়ার, মাদক বিক্রির নগদ ৩৭ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়।

আটক হওয়া মাদক ব্যবসায়িরা হলেন, কুমিল্লা নগরীর পুরাতন মৌলভীপাড়া গ্রামের মৃত ফরিদ মিয়ার ছেলে মোঃ শহিদুজ্জামান সজীব (২৮), কাপ্তান বাজার আদালতপাড়া গ্রামের মোঃ জহিরুল হকের ছেলে মোঃ জুবায়েরুল হক @নিপু (৩১), বজ্রপুর সার্কুলার রোডের মৃত আঃ জলিলের ছেলে মোঃ শাকিল বিন জলিল (৩০) বুড়িচং উপজেলার জিয়াপুর গ্রামের মৃত আঃ জলিল ভূইয়ার ছেলে মোঃ আবুল হোসেন ভূইয়া (৩৮)।

গ্রেফতারকৃত আসামীদেরকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ ও অনুসন্ধানে জানা যায় যে, তারা পরস্পর যোগসাজশে কুমিল্লাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ইয়াবা ট্যাবলেট ক্রয়-বিক্রয় ও সরবরাহ করে আসছিল।

বিশেষ উল্লেখ্য যে উক্ত অভিযান শেষে আসামীদেরকে প্রয়োজনীয় দালিলিক কার্যক্রম এর জন্য র‌্যাব অফিসে নিয়ে আসলে গ্রেফতারকৃতদের ছাড়ানোর জন্য র‌্যাবকে উৎকোচ প্রদানের চেষ্টাকালে আরো ৬ জনকে আটক করা হয়। আটককৃতরা হলেন, কুমিল্লা জেলার কোতয়ালি থানার গোবিন্দপুর গ্রামের মৃত মোহাম্মদ আলীর ছেলে মহানগর যুবরীগ নেতা মোঃ বোরহান মাহমুদ @কামরুল (৪৭), কোতয়ালি থানার কাপ্তান বাজার থানার আদালতপাড়া গ্রামের মৃত ইউনুছ মুন্সীর ছেলে মোঃ জহিরুল হক (৬৪), কোতয়ালি থানার বজ্রপুর মৌলভীপাড়া গ্রামের আহমেদুল কবির এর ছেলে মোঃ ইফতেখারুল কবির (১৮), কোতয়ালি থানার মৌলভীপাড়া গ্রামের মৃত ফরিদ আহমেদ এর ছেলে ওয়ার্ড আ’লীগ নেতা মোঃ ফয়েজ আহমেদ @অপু (৪০), কোতয়ালি থানার ছোটরা গ্রামের মৃত আঃ বারেকের ছেলে মোঃ নিয়ামুল (৩০), কোতয়ালি থানার ইলাসপুর গ্রামের মোঃ আব্দুস সালাম এর ছেলে মোঃ আমজাদ হোসেন (৩৬)। এসময় তাদের কাছ থেকে উৎকোচ প্রদানের ২ লক্ষ ২ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয় ।

উক্ত বিষয়ে ধৃত আসামীগণের বিরুদ্ধে মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে কুমিল্লা জেলার কোতয়ালি থানায় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ প্রক্রিয়াধীন এবং উৎকোচ প্রদানের চেষ্টা করার অপরাধে দুর্নীতি দমন কমিশনের মামলা প্রদানের আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ প্রক্রিয়াধীন।

কুমিল্লা র‌্যাব-১১ এর সিপিসি-২ এর কমান্ডার মেজর নাজমুস সাকিব এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।