ঢাকা, আজ শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১

কুমিল্লায় সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন ও সংবাদ সম্মেলন

প্রকাশ: ২০২১-০৬-০২ ১৮:২০:০১ || আপডেট: ২০২১-০৬-০৩ ০২:৪২:০২

সোহাইবুল ইসলাম সোহাগঃ

কুমিল্লা আদর্শ সদর উপজেলার কোটবাড়ি রোড বলরামপুরে সন্ত্রাসী পিচ্ছি জালাল কর্তৃক ব্যবসায়ী মনির হোসেনের উপর সন্ত্রাসী হামলা ও পিচ্ছি জালালের সন্ত্রাসী কার্যকলাপের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন বলরামপুর,কাশিনাথপুর, ও দৌলতপুরের এলাকাবাসী।বেলা ১২ টার দিকে স্থানীয় কোটবাড়ি বিশ্বরোড এলাকায় কয়েক শ নারী-পুরুষ ঘণ্টাব্যাপী মানববন্ধন করেন। এ সময় প্রতিবাদকারীরা হামলাকারী সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তার ও বিচার দাবি করেন।

এলাকাবাসী ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্র জানায়, রোববার দিনের বেলায় ওই পিচ্ছি জালালের নেতৃত্বে ১৫ থেকে ১৬ জন মেসার্স মাসফি ট্রেডার্সের মালিক মনির হোসেন ও মামুন এর ওপর হত্যার উদ্দেশ্যে হামলা করে। সন্ত্রাসীরা লাঠিসোঁটা ও ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে মনির (২৮), মামুন (৩৮) নামে ২ জনকে আহত করে। এর মধ্যে গুরুতর আহত মনির হোসেনকে ওই রাতেই কুমিল্লা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হলে প্রাথমিক চিকিৎসা করে কুমেক হাসপাতালে রেফার করেন। বাকি জন স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা নিয়েছেন।

ভুক্তভোগী ব্যক্তিরা বলেন, এক অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষকের বাড়ি নির্মাণ সামগ্রী দেওয়াকে কেন্দ্র করে সন্ত্রাসী পিচ্ছি জালাল জোড় পূর্বক রড,সিমেন্ট দিতে গেলে মেসার্স মাসফি ট্রেডার্সের মালিক মনির হোসেন ও মামুন তাকে জিজ্ঞেস করলে সে ক্ষিপ্ত হয়ে সে ১৫ থেকে ১৬ জন সন্ত্রাসী কে সাথে করে হত্যার উদ্দেশ্যে সেনি নিয়ে মনিরকে কোপ দিয়ে গুরুতর যখম করে। তাঁরা অভিযোগ করেন, হামলার সময় এলাকাবাসী সন্ত্রাসী কার্যকলাপটি দেখেন এবং তাদের প্রতিহত করলে তারা চলে যায়।

জালাল কে বিষয়টি সম্পর্কে বললে তিনি অস্বীকার করে বলেন,ইবনে তাইমিয়া’র এক শিক্ষকের ঘরের কাজে বাঁধা প্রদান করেন কিছু বখাটে লোক আমি তাদের বিরুদ্ধে কথা বললে তারা আমার দোকান ও ঘরবাড়িতে হামলা চালায়।

কুমিল্লা কোতয়ালী থানার ওসি বখতিয়ার উদ্দিন বলেন,এই ঘটনা সম্পর্কে আমার নিকট জালাল নামে এক ব্যক্তির অভিযোগ এসেছে কিন্তু মনির হোসেন নামে কেহ কোনো অভিযোগ দেয়নি।অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।