ঢাকা, আজ শনিবার, ১৯ জুন ২০২১

কুমিল্লার’ খোশাবাস ইউপি চেয়ারম্যানকে মারধরের ঘটনায় কারাগারে ছাত্রলীগ নেতা

প্রকাশ: ২০২১-০৬-০১ ০৩:৫৩:১৩ || আপডেট: ২০২১-০৬-০১ ০৩:৫৩:১৩

সোহাইবুল ইসলাম সোহাগঃ
কুমিল্লায় ইউপি চেয়ারম্যানকে মারধরের ঘটনায় মামলায় মহানগর ছাত্রলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক ফয়সাল খানকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ফয়সাল রবিবার (৩১ মে) আদালতে হাজির হয়ে জামিনের আবেদন করলে আদালত তা নামঞ্জুর করে জেল হাজতের পাঠানোর নির্দেশ দেন। কুমিল্লা আদর্শ সদর আদালতের বিচারক সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট গোলাম মাহাবুব এই আদেশ দেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেন কুমিল্লা কোর্ট পুলিশ ইন্সপেক্টর সালাউদ্দিন আল মাহমুদ।

মামলা তথ্য অনুসারে জানা যায় , গত শুক্রবার (২১ মে) রাতে কুমিল্লা নগরীর রেসকোর্স এলাকার হিউম্যান হাসপাতালের সামনে কুমিল্লার বরুড়ার ৩নং খোশবাস ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নাজমুল হাসান সর্দারের উপর দলবল নিয়ে হামলা করেন কুমিল্লা মহানগর ছাত্রলীগ নেতা ফয়সাল খান। হামলায় চেয়ারম্যান নাজমুলকে এলোপাতারি মারধর আহত করা হয়।

মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন জায়গায় অস্ত্র দিয়ে আঘাত করা হয়। হামলা থেকে বাঁচাতে এগিয়ে আসলে আলী আকবর নামে আরও একজন আহত হন। ছিনিয়ে নেওয়া হয় সঙ্গে থাকা মোটরসাইকেল, মোবাইল ফোন ও টাকাপয়সাও। পরে হামলা ও মারধরের ঘটনায় চেয়ারম্যান বাদী হয়ে কুমিল্লা কোতয়ালি থানায় মামলা দায়ের করে।

উল্লেখ্য ছাত্রলীগ নেতা ফয়সাল খান বরুড়া ৩নং খোশবাস ইউপি চেয়ারম্যান নাজমুল হাসান সর্দারের প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী ফাহাদের ছোট ভাই এবং বরুড়া পয়েলগুচ্ছ গ্রামের সূর্য আলীর ছেলে।