ঢাকা, আজ মঙ্গলবার, ১৫ জুন ২০২১

লালমাইয়ে আগুনে বসতঘর পুড়ে ছাই হয়েছে নব সংসারের স্বপ্ন!

প্রকাশ: ২০২০-১২-১৯ ১১:৪৮:১৯ || আপডেট: ২০২০-১২-১৯ ১১:৪৮:১৯

প্রদীপ মজুমদার (বিশেষ প্রতিনিধি)

কুমিল্লার লালমাইয়ে অগ্নিকাণ্ডে দুই বসতঘর পুড়ে ছাইয়ের পাশাপাশি ঘরবাঁধার স্বপ্ন ও পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। বিয়ের গয়না নগদ টাকা বিভিন্ন সরঞ্জাম সহ এতে প্রায় ৮ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে দাবি ভুক্তভোগীদের। শুক্রবার ভোর ৪টায় উপজেলার পেরুল দক্ষিণ ইউনিয়নের লুধুয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। স্হানীয় চেয়ারম্যান ও গ্রামবাসী ঘণ্টাব্যাপী চেষ্টা করে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

জানা গেছে, শেষ রাতে সবাই যখন গভীর ঘুমে সেই সময় বসতঘরের বৈদ্যুতিক লাইনে শর্ট সার্কিট হয়ে আগুনের সূত্রপাত ঘটে। মুহূর্তের মধ্যে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। এলাকাবাসীর চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনা হয়। এতে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র, আসবাবপত্রসহ পুরো ঘর পুড়ে যায়।

ক্ষতিগ্রস্ত বসতঘরের মালিক জয়নাল আবেদীন জানান মেয়েকে বিয়ে দেয়ার সকল প্রস্তুতি চলছিল আগামীকাল ছিলো গায়ে হলুদ, এনজিও থেকে লোন ও ধারদেনা করে বিয়ের সোনা গয়না টাকা খাবারের আয়োজন সম্পূর্ণ করেছিলাম আগুনে আমাদের পুরো ঘর পুড়ে গেছে। আমার সকল স্বপ্ন পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। কোনো কিছুই রক্ষা করা যায়নি। এতে আমাদের প্রায় ৮ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে।

আজ শনিবার আগুন লাগার ঘটনাস্থল পরিদর্শনে এসে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. নজরুল ইসলাম বলেন, ‘দুর্ঘটনায় সম্বল হারানো অসহায়দের পাশে থাকবে লালমাই উপজেলা প্রশাসন। তাদের সব ধরনের সহায়তা দেওয়া হবে। তিনি তাদের ৬০ কেজি চাল, কম্বল ও গৃহনির্মাণের ব্যবস্থা করে দিবে বলে আশ্বস্ত করেন। অগ্নিকান্ডে ক্ষয়ক্ষতি নিরূপণে প্রয়োজনে তদন্ত কমিটি গঠন করা হবে বলে জানান তিনি ।
স্হানীয় ইউপি চেয়ারম্যান সফিকুর রহমান বলেন আগুন লাগার খবর পেয়ে লাকসাম ও কুমিল্লা ফায়ার সার্ভিসে খবর দেই কিন্তু তারা আসেনি। স্হানীয় লোকজন নিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনা হয়। আমি ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারে দুই বান ঢেউটিন দিয়ে গৃহনির্মাণের ব্যবস্থা করে দিচ্ছি।